fbpx

হলুদ গুড়া ও মধুর ব্যবহারে ত্বকের যত্ন

রূপচর্চায় আমরা বিভিন্ন ধরনের উপাদান ব্যবহার করে থাকি। তবে আমরা প্রাকৃতিক উপায়ে হলুদ গুড়ো ও মধুর ব্যবহার করতে পারি।রূপচর্চায় হলুদের ব্যবহার সম্পর্কে আমাদের সকলের জানা আছে।আমরা মূলত হলুদের ব্যবহার করে থাকি রান্নার কাজে ব্যবহার করে থাকি।তবে এটি কিন্তু রূপচর্চায় অনেক উপকারি ভূমিকা পালন করে থাকে। আর মধু কিন্তু আমাদের স্বাস্থ্যের জন্য খুবই উপকারি। মধুকে বলা হয়ে থাকে সবরোগের নিরাময়ক।  তবে মধুকে আমরা রূপচর্চায় ব্যবহার করতে পারি।অস্বাস্থ্যকর জীবন যাপন  আর লম্বা সময় ধরে ত্বক ফর্সা করার ক্রীম ব্যবহারে যা রাসায়নিক নির্ভর প্রসাধন সামগ্রী,  ব্যবহারের ফলে আপনার ত্বক আর ও কালো ও প্রাণহীন হয়ে উঠতে পারে। আর এই ত্বকের রঙ উজ্জ্বল করার জন্য আমরা অনেক চেষ্টাই করি।আপনি চাইলে কিন্তু  আপনার ত্বককে আগের চাইতে অনেক উজ্জ্বল ও ত্বক ফর্সা  করে ফেলতে পারবেন। আজকে আমরা আপনাদের জন্য তাই নিয়ে এসেছি আপনার ত্বকের যত্নে হলুদ গুঁড়ো ও মধুর কার্যকারী প্যাক এই প্যাক টি ব্যবহারে আপনার ত্বকের ভিতর থেকে পরিষ্কার করে আপনার ত্বক করে তুলবে উজ্জ্বল এবং লাবণ্যময়। মধু ও হলুদ ব্যবহার করে কিভাবে আমরা রূপচর্চা করতে পারি তা এখন আমরা দেখব।

তাহলে আসুন এবার জেনে নেওয়া যাক কিভাবে মধু ও হলুদ আমাদের ত্বক উজ্জ্বল রাখতে সাহায্য করে থাকে :

প্রয়োজনীয় উপকরণ :

১) মধু

২) হলুদ

প্রস্তুত প্রণালী :

প্রথমে একটা বাটিতে এক চামচ মধু নিয়ে নিতে হবে। এরপর এর ভিতর এক টেবিল চামচ হলুদ গুড়ো মিশিয়ে নিতে হবে। এবার এই দুটি উপাদানকে ভালোভাবে মিশিয়ে একটি প্যাক তৈরী করে নিতে হবে।

ব্যবহারের নিয়মাবলি :

এই প্যাকটি আপনার মুখে ত্বকে আলতো হাতে লাগিয়ে নিতে হবে। এরপর ১৫ মিনিট অেপেক্ষা করতে হবে। ১৫ মিনিট হয়ে গেলে এবং আপনার প্যাকটি শুকিয়ে গেলে তারপর কুসুম গরম পানি দিয়ে মুখ ধুয়ে ফেলুন ।

এই প্যাকটি সপ্তাহে কমপক্ষে দুই দিন ব্যবহার করতে হবে। এই প্যাকটি ত্বক এর ভিতর থেকে পরিষ্কার করে উজ্জ্বলতা বৃদ্ধি করে থাকে। আপনি চাইলে এই প্যাকের সাথে দুধ মিশিয়ে নিতে পারেন।

এভাবে নিয়মিত ব্যবহার করলে আস্তে আস্তে ত্বক উজ্জ্বল হবে।

 

Facebook Comments